,

সাংবাদিকদের উপর হামলা: যুবলীগ-ছাত্রলীগ নেতাদের ক্ষমা প্রার্থনা

নিউজ ডেস্ক :: ১০ ফেব্রুয়ারি নগরের মির্জাজাঙ্গাল এলাকায় ইন্ডিপেন্ডেন্ট টেলিভিশন সিলেট অফিসের প্রতিবেদক মাধব কর্মকার ও চিত্রগ্রাহক গোপাল বর্ধনের সঙ্গে যুবলীগ ও ছাত্রলীগকর্মীদের অনাকাঙ্খিত ঘটনার নিষ্পত্তি হয়েছে।

রবিবার রাতে ইলেকট্রনিক মিডিয়া জার্নালিষ্ট এসোসিয়েশন (ইমজা) কার্যালয়ে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র বদরউদ্দিন আহমদ কামরানের উপস্থিতিতে একসভায় এ ঘটনার সম্মানজনক নিষ্পত্তি হয়।

ইলেকট্রনিক মিডিয়া জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি বিশিষ্ট সাংবাদিক আল আজাদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় গত শনিবার নগরের মির্জাজাঙ্গাল এলাকায় সাংবাদিকদের ওপর হামলার ঘটনায় জড়িত যুবলীগকর্মী মোছাদ্দেক হোসেন মুসা ও ছাত্রলীগকর্মী রাজেশ সরকার উপস্থিত হয়ে ক্ষমা প্রার্থনা করে দুঃখপ্রকাশ করেন। ভবিষ্যতে এধরণের ঘটনার পুনরাবৃত্তি হবেনা বলে তারা অঙ্গিকার করেন।

সভায় মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদরউদ্দিন আহমদ কামরান বলেন, গণমাধ্যম রাজনৈতিক কর্মীদের উত্তান-পতনের অন্যতম অবলম্বন। আমরা সবসময় রাজনৈতিক কর্মকা-ে সাংবাদিকদের সহযোগিতা পাই। ছাত্রলীগের একটি অংশের কয়েকজন কর্মীর এই নিন্দনীয় ঘটনায় আমরা লজ্জিত। এটি একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা। ভবিষ্যতে এধরণের ঘটনা যাতে আর না ঘটে, তা দলীয় ফোরামে আলোচনা করে আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করব। তিনি এঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করে অতীতের ন্যায় ভবিষ্যতেও সাংবাদিকদের সহযোগিতা কামনা করেন।

যুবলীগ ও ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি মিন্টু কুমার পাল মন্টু, মহানগর ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এমরুল হাসান, মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ সভাপতি এম. রশিদ আহমদ, মহানগর ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মঈনুল হক ইলিয়াছি দিনার প্রমুখ।

     More News Of This Category