পাওনা টাকার জন্য মুক্তিযোদ্ধাকে হত্যা, গ্রেপ্তার ৪

by sylhetmedia.com

মিডিয়া ডেস্ক: পাওনা টাকা চাওয়ায় সাতক্ষীরায় আবুল কালাম আজাদ নামে এক মুক্তিযোদ্ধাকে পিটিয়ে হত্যা করেছে দেনাদার মোমিনুল ইসলাম।

সোমবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) রাত ৯টার দিকে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ঘোনা বাজারে এ ঘটনা ঘটে। আবুল কালাম সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ঘোনা গ্রামের মৃত আবুল হামিদের ছেলে।

এ ঘটনায় চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত ব্যক্তিরা হলেন ঘোনা গ্রামের মোমিনুল ইসলাম, ওয়াদুদ, মুন্না হোসেন ও মো. রনি।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফিরোজ হোসেন মোল্লা বলেন, আবুল কালাম আজাদের ঘোনা বাজারে একটি রড-সিমেন্টের দোকান আছে। স্থানীয় মোমিনুল তার দোকান থেকে লক্ষাধিক টাকার মালামাল বাকি নেন।  সোমবার রাত ৯টার দিকে ঘোনা বাজারে মোমিনুলের কাছে পাওনা টাকা চান আবুল কামাল। এতে মোমিনুল ক্ষিপ্ত হয়ে কামালকে মারধর করেন। মারাত্মক আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে রাত আড়াইটার দিকে তিনি মারা যান।

তিনি আরো বলেন ‘মামলায় অভিযুক্ত চারজনকে  রাতেই গ্রেপ্তার করা হয়।’

এ ঘটনায় নিহতের ছেলে আক্তারুল ইসলাম সদর থানায় ৭জনকে আসামি করে একটি মামলা করেন বলে ওসি জানিয়েছেন।

নিহতের ছেলে আক্তারুল জানান, গ্রেপ্তার মোমিনুল তাদের দোকান থেকে কয়েক লাখ টাকার রড-সিমেন্ট বাকিতে নিয়েছিলেন।

“পাওনা টাকা চাইলে তিনি বেশিরভাগ সময়ই টালবাহানা করতেন। সোমবার রাতে আবারও টাকা চাইতে গেলে মোমিনুল ও তার সহযোগীরা বাবাকে মারধর করেন। পরে হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।”

নিহত আবুল কালাম আজাদ আট নম্বর সেক্টরের অধীনে যুদ্ধ করেছিলেন বলে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সাতক্ষীরা সদর উপজেলা কমাণ্ডের কমাণ্ডার হাসানুল ইসলাম জানিয়েছেন।

“হাকিমপুর, কাকডাঙ্গা, ভোমরা বন্দরে আমরা একসঙ্গে লড়েছিলাম,” বলেন তিনি।

Related Posts



cheap mlb jerseyscheap nfl jerseyscheap mlb jerseyscheap nhl jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseys