শিক্ষার্থীরাই আমাদের আধুনিক রাষ্ট্রে পরিণত করবে : শিক্ষামন্ত্রী

by sylhetmedia.com

আহমদ রেজা চৌধুরী: শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, শিখার কোন শেষ নেই। জীবনের শেষ পর্যন্ত সবাইকে শেখার মধ্যেই থাকতে হয়। আধুনিক প্রযুক্তি নির্ভর একটি শিক্ষিত প্রজন্ম গড়ার তাঁর সরকারের লক্ষ্য একথা উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, উচ্চ শিক্ষা অর্জন করে দেশের আগামী প্রজন্ম এদেশকে বিনির্মাণ করবে। বিশ্বকে জানিয়ে দেবে ত্রিশ লাখ শহিদের রক্তের একটি স্বাধীন দেশকে সঠিক নেতৃত্বে মধ্যম আয়ের দেশকে উন্নত দেশে পরিণত হয়েছে।

এই শিক্ষার্থীরাই আমাদের উন্নত এবং আধুনিক রাষ্ট্রে পরিণত করবে। স্বাধীনতার মহা নায়ক বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে যারা দেশের অগ্রযাত্রা ব্যাহত করেছিলো সেই সব হত্যাকারি ও তাদের পৃষ্ঠপোশকদের নাম উল্লেখ করে তিনি বলেন, ২১ বছর দেশের ক্ষমতা কুক্ষিগত করে রেখেছিলো জিয়া-মোস্তাকরা। তারা ইনডেমনীতি আইন তৈরী করে দেশের সুশাসন কেড়ে নিয়েছিলো। লুটতরাহজ ছাড়া দেশকে কিছুই দিতে পারেনি। স্বাধীনতা উত্তর বাংলাদেশ বিশ্ব থেকে সেখানেই পিছিয়ে যায়।

তাঁর সরকার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে একটি মধ্যম আয়ের দেশের দিকে প্রবল বেগে এগিয়ে যাচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, শিক্ষা, অবকাঠামো, যোগাযোগ ও বিদ্যুৎখাতের যুগোপযোগী উন্নীত সাধিত হয়েছে। যার কারণে বাংলাদেশ অচিরেই মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবে।

বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজে তিন বিষয়ে মাস্টার কোর্সের উদ্বোধন, কলেজ বার্ষিকী অন্বেষা’র মোড়ক উন্মোচন এবং বার্ষিক ক্রীড়া ও সাহিত্য-সংস্কৃতি প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। শিক্ষামন্ত্রী বলেন, এক সময় বিএ পড়তে এ অঞ্চলের শিক্ষার্থীদের ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেট যেতে হয়েছে। দিন বদেলেছে। তাঁর সরকার শিক্ষা ব্যবস্থার উন্নয়ন ধারা অব্যাহত রাখায় এখন বিয়ানীবাজারসহ আশপাশ উপজেলার শিক্ষার্থীদের নিজ বাড়িতে থেকে অনার্স ও মাস্টার্সে পড়তে পারবে।

অবকাঠামো দিক দিয়ে বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজকে আরও সমৃদ্ধ করা হবে উল্লেখ করে তিনি বলেন ১৫ কোটি টাকা ব্যয়ে আট তলা বিশিষ্ট প্রশাসনিক ভবন শীঘ্রই নির্মান শুরু হবে। একসাথে আরও একাডেমীক ভবন নির্মাণ করা হবে।

এসব অবকাঠামোর উন্নয়ন কাজ শেষ হলে এখানে আরও বেশি পরিনাম শিক্ষার্থী অধ্যয়ন করতে পারবে। কলেজ অধ্যক্ষ অধ্যাপক দ্বারকেশ চন্দ্র নাথ’র সভাপতিত্বে এবং সহযোগী অধ্যাপক প্রশান্ত মৃধা ও প্রভাষক সরকার মো. শফিউল্লাহ দিদার’র সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আতাউর রহমান খান, কলেজের উপাধ্যক্ষ অধ্যাপক মঞ্জুর এ এলাহী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল হাসিব মনিয়া, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মু: আসাদুজ্জামান, কলেজের শিক্ষক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ফজলুল হক, সহযোগী অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম মল্লিক ও বিমান বিহারী রায়, মো. হাবিবুর রহমান, শিক্ষাবিদ আলী আহমদ, জাতীয় বিশ্ব বিদ্যালয়ের উপ পরিচালক সহযোগী অধ্যাপক তারিকুল ইসলাম, শিক্ষামন্ত্রীর একান্ত সহহকারি সচিব দেওয়ান মাকসুদুল ইসলাম আউয়াল প্রমুখ।

অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সহকারি অধ্যাপক আব্দুর রহিম, মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান ও এনামুল হক, প্রভাষক শফিকুল ইসলাম, মনিরুল আলম ও জহির উদ্দিন, আরবাব হোসেন, মাধ্যমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি মজির উদ্দিন আনছার, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি ময়নুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক মস্তাক আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন বাবুল ও জাকির হোসেন, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারি রেজিস্টার (আঞ্চলিক) আব্দুল খালিক, বিয়ানীবাজার থানা ইনচার্জ চন্দন কুমার চক্রবর্তী, পৌর আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আব্দুস শুকুর, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক আব্দুল কুদ্দুছ টিটু, সাংবাদিক আব্দুল ওয়াদুদ, আহমেদ ফয়সাল, আহমদ রেজা চৌধুরী, আবু তাহের রাজু, রুহেল আহমদ, উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা আলমগীর হোসেন রুনু, গৌছ উদ্দিন খান খোকা প্রমুখ।

Related Posts



cheap mlb jerseyscheap nfl jerseyscheap mlb jerseyscheap nhl jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseyscheap jerseys